1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Editor :
সাংবাদিক আজাদের মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন - বাংলা টাইমস
মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ০২:০২ পূর্বাহ্ন

সাংবাদিক আজাদের মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময় : শনিবার, ৬ নভেম্বর, ২০২১
  • ৪৬ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার জাতীয় দৈনিকে কর্মরত সাংবাদিক আবুল কালাম আজাদের মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়েছে। শনিবার (৬ নভেম্বর) দুপুর ১২টায় বালিয়াডাঙ্গী সাংবাদিক সমাজের আয়োজনে ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়।

 

সাংবাদিক এসএম মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন সাংবাদিক হারুন অর রশিদ।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন-সাংবাদিক রমজান আলী,আল মামুন জীবন,মজিবর রহমান শেখ,রাজিউর রহমান জেহাদ,মোহাম্মদ উল্লাহ রায়হান দুলু, সফিউল আলম কায়সার,এন এম নুরল ইসলাম,জুলফিকার আলী শাহ,জানে আলম,আব্দুস সবুর,ওমর হাসনাত ও এস এম ম্যারিয়েন সরকার প্রমুখ।

সাংবাদিকরা বলেন, মিথ্যা হয়রানী মূলক একটি মামলায় আদালতের প্রতি সম্মান জানিয়ে আগাম জামিন নিতে গিয়েছিলেন সংবাদিক আজাদ সহ ৯ জন আসামী। জামিন না মঞ্জুর করে ৯ জনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন বিচারক। গত ১৭ দিন যাবৎ কারাগারে রয়েছেন সংবাদিক আজাদ। মামলাটিতে সাংবাদিক আজাদকে হয়রানীর জন্য আসামী করা হয়েছে বলে উল্লেখ করে মামলাটি পুনরায় তদন্ত এবং সংবাদিক আজাদকে জামিন দিতে আদালতের বিচারকের সদয় দৃষ্টি আকর্ষণ করেন মানববন্ধনে উপস্থিত সংবাদিকরা।

এর আগে গত ২১ অক্টোবর বিয়ের নামে এক যুবকের কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবির মামলায় সাংবাদিক আবুল কালাম আজাদ ও বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার দুওসুও ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুস সালামসহ ৯ আসামি সিআর মামলায় স্বেচ্ছায় আদালতে হাজির হলে তাঁদের জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে পাঠান আদালত। গত বৃহস্পতিবার ঠাকুরগাঁও জেলা ও দায়রা জজ আদালতে পুনরায় জামিনের আবেদন করলে ইউপি চেয়ারম্যানের জামিন দেয় আদালত। অন্যদের জামিন না মঞ্জুর করে।

২০১৯ সালের ৯ মে বালিয়াডাঙ্গীর চাড়োল ইউনিয়নের ছোট সিংগিয়া গ্রামের মিজানুর রহমানকে অপহরণ করে পার্শ্ববর্তী দুওসুও ইউনিয়ন পরিষদে নিয়ে গিয়ে ভয় দেখিয়ে কাবিন নামায় সই করে নেন অভিযুক্তরা। এ সময় দুওসুও ইউনিয়নের ছোট পলাশবাড়ী গ্রামের রিতা আক্তারকে জোর করে বিয়ে করতে বলা হয়, তা না হলে ১০ লাখ টাকা দাবি করেন মামলার আসমীরা। এসব অভিযোগে মিজানুর বালিয়াডাঙ্গী থানায় ২০১৯ সালের ২২ সেপ্টেম্বর মামলা করেন। পরে সেই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন তদন্তকারী কর্মকর্তা তৎকালীন মোসাব্বেরুল হক।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় সিসা হোস্ট