1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Editor :
'একজন শিক্ষার্থীও টিকার বাইরে থাকবে না' - বাংলা টাইমস
মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১২:৩৬ পূর্বাহ্ন

‘একজন শিক্ষার্থীও টিকার বাইরে থাকবে না’

নিজস্ব প্রতিবেদক 
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ১ নভেম্বর, ২০২১
  • ৫০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, যেসব শিশু স্কুলে যায় না তাদেরও টিকা কার্যক্রমের আওতায় আনা হবে। ঝরেপড়া ও ২৫-এর কম বয়সীদেরও টিকা দেওয়া হবে।

 

সোমবার (১ নভেম্বর) রাজধানীর মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজে শিক্ষার্থীদের করোনার টিকা প্রদান কর্মসূচির উদ্বোধনীকালে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, প্রতিদিন ৪০ হাজার টিকা দেওয়া হবে। ফাইজারের পর্যাপ্ত টিকা রয়েছে। পাইপলাইনে আরও আছে। দেশে সব শিশুকে টিকা দিতে তিন কোটি টিকা প্রয়োজন। একজন শিক্ষার্থীও টিকার বাইরে থাকবে না।

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন-স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম, অতিরিক্ত মহাপরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা, মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল মিলার, শিক্ষা সচিব মাহবুবুর রহমান প্রমুখ।

জানা গেছে, রাজধানীতে টিকা কেন্দ্র বসবে ৮টি স্কুলে। প্রতিটি কেন্দ্রে থাকবে ২৫টি করে বুথ। একেক বুথে দিনে টিকা পাবে ২০০ শিক্ষার্থী। রাজধানীর হার্ডকো ইন্টারন্যাশনাল স্কুল, বাড্ডা; সাউথ পয়েন্ট স্কুল এন্ড কলেজ, রামপুরা; চিটাগাং গ্রামার স্কুল, বনানী; সাউথ ব্রিজ স্কুল, উত্তরা; স্কলাস্টিকা স্কুল, মিরপুর; ঢাকা কমার্স কলেজ, মিরপুর; মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল, মতিঝিল; কাকলী স্কুল এন্ড কলেজ, ধানমন্ডি কেন্দ্রে টিকা দেয়া হবে।

এর আগে ১৪ অক্টোবর মানিকগঞ্জে পরীক্ষামূলকভাবে ১০০ শিক্ষার্থীকে টিকা দেওয়া হয়। তাদের দেওয়া হয় ফাইজারের টিকা। তাদের শারীরিক জটিলতা না হওয়ায় শুরু হচ্ছে টিকার মূল কর্মসূচি।

সোমবার সকাল সাড়ে ৯টায় মতিঝিল আইডিয়ালে কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়। সেখানে টিকা পাবে ৫ হাজার ছাত্রছাত্রী। পরদিন আট স্কুলে শুরু হবে টিকা দেয়া। ঢাকার বাইরে ২১ জেলায় টিকা দিতে একটু বিলম্ব হবে। শিক্ষার্থীর জন্মসনদ ও অন্যান্য তথ্য এখনো জমা হয়নি মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরে। আর রাজধানীর মাত্র চার লাখ শিক্ষার্থীর তথ্য পাঠানো হয়েছে আইসিটি মন্ত্রণালয়ে।

দেশে ১২ থেকে ১৭ বছর বয়সী শিক্ষার্থী প্রায় এক কোটি ১০ লাখ। আপাতত টিকা পাবে ৩০ লাখ। তাদের জন্য রাখা হয়েছে ফাইজারের ৬০ লাখ ডোজ।

মহামারী করোনা সংক্রমণের কারণে দেড় বছর বন্ধ ছিলো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। সংক্রমণ কমে আসায় খুলে দেয়া হয় স্কুল-কলেজ।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় সিসা হোস্ট