1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Editor :
বসুন্ধরা গ্রুপকে হেয় প্রতিপন্ন করতে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা - বাংলা টাইমস
রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২, ০৯:০৯ অপরাহ্ন

বসুন্ধরা গ্রুপকে হেয় প্রতিপন্ন করতে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক 
  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১০৩ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

গুলশানের একটি ফ্ল্যাটে কলেজছাত্রী মোসারাত জাহান মুনিয়াকে ধর্ষণের পর হত্যার অভিযোগে নিহতের বোন নুসরাত জাহান তানিয়ার করা মামলাটি ষড়যন্ত্রমূলকভাবে সাজানাে বলে জানিয়েছে বসুন্ধরা গ্রুপ।

 

সোমবার (৬ সেপ্টেম্বর) রাতে বসুন্ধরা গ্রুপের প্রেস অ্যান্ড মিডিয়া উপদেষ্টা মোহাম্মদ আবু তৈয়ব স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলা হয়।

 

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘মামলাটি ষড়যন্ত্রমূলকভাবে সাজানাে হয়েছে। বসুন্ধরা গ্রুপকে হেয় প্রতিপন্ন করতে উদ্দেশ্যমূলকভাবে বাদী অবাস্তব, ভিত্তিহীন ও কাল্পনিক তথ্য দিয়ে মামলাটি সাজিয়েছেন। যথাযথ আইনগত প্রক্রিয়ায় বসুন্ধরা গ্রুপ এই ভিত্তিহীন ও ষড়যন্ত্রমূলক মামলা মােকাবিলা করবে।’

 

‘একই বাদী ইতোপূর্বে তার বােন মােসারাত জাহান মুনিয়ার অপমৃত্যুর ঘটনায় বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) সায়েম সােবহান আনভীরের নাম জড়িয়ে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছিলেন। পুলিশের তদন্তে তার ওই অভিযােগ যে অসত্য, তা বেরিয়ে এসেছে। যা তদন্তকারীরা আদালতে প্রতিবেদন দিয়ে জানিয়েছেন এবং আদালত বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালককে উক্ত মামলা থেকে অব্যাহতি দিয়েছেন।’

 

‘একই তানিয়া বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সােবহানসহ তার পরিবারের সদস্যদের নাম জড়িয়ে উদ্দেশ্যমূলকভাবে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছেন।

 

‘মামলার অভিযোগ থেকে দেখা গেছে, কথিত ধর্ষণ ও হত্যার অভিযোগে বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহানের স্ত্রী আফরোজা বেগম এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক সায়েম সোবহান আনভীরের স্ত্রী সাবরিনা সোবহানকে আসামি করা হয়েছে। ধর্ষণ ও হত্যার মতো জঘন্যতম অপরাধের সঙ্গে দেশের স্বনামধন্য বৃহৎ শিল্পপরিবারের সদস্যদের নাম জড়িয়ে তাদের হেয় প্রতিপন্ন এবং মূলত ব্ল্যাকমেইল করাই এই মামলার প্রধান উদ্দেশ্য।’

 

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ‘এমন অভিযোগে বাবা, মা, সন্তান ও পুত্রবধূকে আসামি করার ঘটনায় স্পষ্টত বোঝা যায়, আনীত অভিযোগ কতটা বানোয়াট ও ভিত্তিহীন। এসব ঘটনার সঙ্গে বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান, ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং তাদের পরিবারের কারোর কোনো প্রকার সম্পৃক্ততা নেই। বসুন্ধরা গ্রুপকে ষড়যন্ত্রমূলকভাবে হেয় প্রতিপন্ন করে অসৎ উদ্দেশ্য বাস্তবায়নের জন্য দায়েরকৃত মিথ্যা মামলার বিরুদ্ধে আমরা তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।’

 

বিজ্ঞপ্তিতে দেশের গণমাধ্যমের উদ্দেশ্যে বসুন্ধরা গ্রুপ থেকে বলা হয়, ‘আপনারা এসব ষড়যন্ত্রের ব্যাপারে সজাগ থেকে ষড়যন্ত্রকারীদের উদ্দেশ্য সম্পর্কে সঠিক তথ্য দেশের জনগণের সামনে উপস্থাপন করবেন এটাই আমাদের প্রত্যাশা।’

 

‘অতীতে বসুন্ধরা গ্রুপের বিরুদ্ধে যখনই কোনো ষড়যন্ত্র হয়েছে, তখনই আইনগত প্রক্রিয়ায় বিজ্ঞ আদালতে বিচারপ্রার্থী হয়েছে বসুন্ধরা। জনৈকা তানিয়ার মামলাও আইনগতভাবে মোকাবিলা করবে বসুন্ধরা কর্তৃপক্ষ। আমরা আশা করছি, ন্যায়বিচারের মাধ্যমে এই ষড়যন্ত্র নস্যাৎ হবে ইনশাআল্লাহ।’

 

এর আগে, সােমবার ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৮ আদালতে ধর্ষণ ও হত্যার অভিযােগে বসুন্ধরা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) সায়েম সোবহান আনভীরসহ আটজনকে আসামি করে মামলা করা হয়।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় সিসা হোস্ট